৭০০ টাকার পাঞ্জাবি ১৩০০ টাকা, জরিমানা ৪ লাখ

news-details
আইন-আদালত

আমাদের প্রতিবেদক

আড়ং-এর উত্তরা শো রুমকে ৪ লাখ পটাকা জরিমানা করেছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটি সাময়িক বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। ৭০০ টাকার পাঞ্জাবি ১৩০০ টাকায় বিক্রি করায় শো-রুমটির বিরুদ্ধে এই ব্যবস্থা নিয়েছে অধিদফতরটি।

সোমবার রাজধানীর উত্তরায় বিশেষ অভিযান চালিয়ে এ জরিমানা করে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর।

অধিদফতরের ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের সার্বিক তত্ত্বাবধানে অভিযান পরিচালনা করেন অধিদফতরের সহকারী পরিচালক মো. আব্দুল জব্বার মণ্ডল।

মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ার জানান, গত ২৫ মে এক ক্রেতা উত্তরা আড়ং থেকে একটি পাঞ্জাবি কিনে ৭১৩ টাকা দিয়ে। একই পাঞ্জাবি ৩১ মে কিনতে গেলে দাম রেখেছে ১৩১৫ টাকা। অধিদফতরে এমন অভিযোগ করেন এক ভোক্তা। এ প্রেক্ষিতে আজ উত্তরা আড়ংয়ে অভিযান চালিয়ে এর সত্যতা পায় অধিদফতর। আড়ং অভিনব কায়দায় বেশি দাম লিখে ভোক্তাদের ঠোকাচ্ছে। কী অবাক করা বিষয় ছয় দিনে একটি পাঞ্জাবির দাম বেড়েছে ৬০০ টাকা। যার কোনো কারণ জানাতে পারেনি আড়ংয়ের শো-রুমের কর্মকর্তারা।

তিনি জানান, আড়ং একটি ব্র্যান্ড। দেশি ভালো পণ্য বিক্রি করে বলে তাদের প্রতি ক্রেতাদের রয়েছে আস্থা ও সরল বিশ্বাস। এটিকে পুঁজি করে কৌশলে ক্রেতাদের ঠকাচ্ছেন। যা ভোক্তা আইন পরিপন্থী। এ অপরাধে তাদের সাড়ে চার লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। একইসঙ্গে প্রতিষ্ঠানটি সাময়িক বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। দাম বাড়ানোর যৌক্তিক কারণ ব্যাখ্যা করতে প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ অধিদফতরে ডাকা হয়েছে। তারা যৌক্তিক কোনো ব্যাখ্যা দিতে না পারলে প্রতিষ্ঠানটি স্থায়ীভাবে বন্ধ করে দেয়া হবে।

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।