ব্রেকিং নিউজ

‘পলাশীর বিপর্যয়ের জন্য দায়ী শাসকগোষ্ঠীর লোভ ও দুর্নীতি’

news-details
রাজনীতি

আমাদের প্রতিবেদক

মুর্শিদাবাদের পলাশীর প্রান্তরে কোনো যুদ্ধ হয়নি, যুদ্ধের নামে প্রহসন হয়েছিল বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ ন্যাপের মহাসচিব গোলাম মোস্তফা ভুইয়া।  তিনি বলেন, পলাশীতে বাংলার স্বাধীনতা সূর্য অস্তমিত হয়েছিল শুধুমাত্র যার যা দায়িত্ব তা পালন না করা এবং সিরাজ-উদ-দৌলার মন্ত্রীপরিষদ সদস্যদের সীমাহীন লোভ-দুর্নীতি ও দুর্বৃত্তায়নের কারণে।

তিনি আরও বলেন, পলাশীর বিপর্যয় তখনই ঘটেছিল যখন অর্থনীতির উপর থেকে তৎকালীন সরকারের নিয়ন্ত্রণ অন্যের হাতে চলে গিয়েছিল। আজও  শাসকগোষ্ঠী ও রাজনীতিবিদদের ব্যর্থতার কারণে দেশ পলাশীর দিকেই ধাবিত হচ্ছে।
 
রোববার (২৩ জুন) নয়াপল্টনের দলের কার্যালয়ে ঐতিহাসিক পলাশী দিবসের ২৬২তম বার্ষিকী স্মরণে বাংলাদেশ ন্যাপ ঢাকা মহানগর আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।
 
ন্যাপ মহাসচিব বলেন, ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি বাণিজ্যের নামে এদেশে প্রবেশ করে অবশেষে দেশের স্বাধীনতা হরণ করেছিল। কেউ যেন বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ করতে না পারে সে ব্যাপারে সরকারসহ সব দেশপ্রেমিক রাজনৈতিক দল, ব্যক্তি ও গোষ্ঠীকে সজাগ থাকতে হবে। মনে রাখতে হবে নবাব সিরাজ-উদ-দৌলার বিরুদ্ধে যারা ষড়যন্ত্র করেছিল, তারা সবাই শাসক গোষ্ঠীর অংশ ছিল। আমরা সবাই বলি ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিতে হবে, অথচ কেউ আমরা ইতিহাস থেকে শিক্ষা নেই না, এটাই দুঃখজনক সত্য।

মোস্তফা ভুইয়া বলেন, পলাশীর পতন ছিল একটি জাতিকে রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক গোলামির জিঞ্জিরে আবদ্ধ করার প্রাথমিক পদক্ষেপ মাত্র। পলাশীর আম্রকাননে বাংলার স্বাধীনতার সূর্য অস্তমিত হবার পর বিদেশী ও দেশীয় বেনিয়াদের যোগসাজশে যে লুটপাটের রাজত্ব শুরু হয়, ইতিহাসে তা নজিরবিহীন। পলাশীর যুদ্ধে সিরাজ-উদ-দৌলার পতন কোন একক ব্যক্তির পতন ছিল না, এটি ছিল একটি স্বাধীন জাতির পতন। 

তিনি বলেন, পলাশীর ইতিহাস ব্যর্থতার ইতিহাস, নিছক নবাব সিরাজ-উদ-দৌলার নবাবী হারানোর ব্যর্থতা সেটা নয়। সেটি স্বাধীনতা রক্ষার ব্যর্থতা। 

ন্যাপ নগর সভাপতি মো. শহীদুননবী ডাবলু'র আলোচনায় অংশ নেন- এনডিপি মহাসচিব মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা, লেবার পার্টি মহাসচিব আবদুল্লাহ আল মামুন, জনদল মহাসচিব সেলিম আহমেদ, ন্যাপ ভাইস চেয়ারম্যান স্বপন কুমার সাহা, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. কামাল ভুইয়া, নগর সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ নজরুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক মো. শামিম ভুইয়া, মহিলা সম্পাদিকা সাদিয়া ইসলাম ইমন প্রমুখ।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।