ব্রেকিং নিউজ

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের চেক জালিয়াতি, দুই পুলিশ কর্মকর্তা গ্রেপ্তার

news-details
ক্রাইম নিউজ

আমাদের প্রতিবেদক

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের চেক জালিয়াতির অভিযোগে দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গত বুধবার  মন্ত্রণালয়ের নিরীক্ষা ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলামের দায়ের করা রমনা থানার মামলায় এ দুজনকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

তারা হলেন- ঢাকা রেঞ্জ কার্যালয়ে কর্মরত ইন্সপেক্টর মীর আবুল কালাম আজাদ (৫৪) ও এএসআই  মোস্তাফিজুর রহমান (৩৮)।

পুলিশ ও মামলা সূত্রে জানা গেছে,  স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ৩৫ লাখ টাকার একটি চেক জালিয়াতি করে সোনালী ব্যাংকের কাকরাইল শাখায় টাকা তুলতে গিয়েছিলেন দুই পুলিশ কর্মকর্তা। কিন্তু স্বাক্ষরের নমুনা দেখে সন্দেহ হওয়ায় বিষয়টি জানানো হয় প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয়ে। নিরীক্ষা ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম চেক নম্বর মিলিয়ে জালিয়াতির বিষয়টি বুঝতে পারেন। পরে ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে চেক জালিয়াতি ও নকল স্বাক্ষরের ব্যাপারে অবহিত করা হয়। 

এই ঘটনায়, নিরীক্ষা ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম বাদী হয়ে তাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা (নং ৩৩) দায়ের করেছেন।
মামলার অভিযোগে বলা হয়, গত ২৪শে জুলাই মীর আবুল কালাম আজাদ ও মোস্তাফিজুর রহমান সুকৌশলে প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয় (স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়)-এর চেক নং ক-৭৮৬৮২৯৩ সংগ্রহ করে অঙ্কের ঘরে ৩৫ লাখ টাকা লিখে জাল স্বাক্ষর করে সোনালী ব্যাংকের কাকরাইল শাখায় জমা দেয়। এরপর ২৮ তারিখে বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে ফোন করে নমুনা স্বাক্ষরে মিল না থাকার কথা জানানো হয়।

পরে মামলার বাদী শফিকুল ইসলাম ব্যাংক ম্যানেজারকে ফোন করে চেকটির ক্লিয়ারেন্স না দিতে অনুরোধ করেন। একই সঙ্গে প্রধান হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয় থেকে বাংলাদেশ ব্যাংক ও সোনালী ব্যাংকের কাকরাইল শাখা বরাবর একটি চিঠি পাঠানো হয়। 


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।