ব্রেকিং নিউজ

সায়েন্স ল্যাবরেটরি এলাকায় বোমা হামলা: জড়িতদের শনাক্ত করতে পারেনি পুলিশ

news-details
জাতীয়

আমাদের  প্রতিবেদক

রাজধানীর সায়েন্স ল্যাবরেটরি এলাকায় ট্রাফিক পুলিশ বক্সের পাশে বোমা বিস্ম্ফোরণের ঘটনায় জড়িতদের শনাক্ত করতে পারেনি আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। তদন্ত সংশ্নিষ্টরা বলছেন, ঘটনার পর থেকেই অনুসন্ধান শুরু হয়েছে। জঙ্গিরা পুলিশকে লক্ষ্য করে এই বিস্ম্ফোরণের ঘটনা ঘটিয়েছে। জড়িতদের শনাক্তে আপ্রাণ চেষ্টা চলছে।

গত শনিবার রাতে ওই বোমা বিস্ম্ফোরণে এএসআইসহ দু'জন আহত হন। এর আগেও গত চার মাসে রাজধানীর পৃথক চারটি এলাকায় পুলিশকে লক্ষ্য করে বোমা বিস্ম্ফোরণ এবং বোমা ফেলে রাখার ঘটনা ঘটে। এর মধ্যে মালিবাগ ও গুলিস্তানে পৃথক বোমা বিস্ম্ফোরণে তিন পুলিশ সদস্যসহ ছয়জন আহত হন। জঙ্গিরাই এই বিস্ম্ফোরণ ঘটিয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছে পুলিশ। তবে এ পর্যন্ত এসব ঘটনায় জড়িতদের শনাক্ত করতে পারেনি আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। 

সায়েন্স ল্যাবে বিস্ম্ফোরণের ঘটনা তদন্ত করছে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিট (সিটিটিসি)। সিটিটিসির দায়িত্বশীল দুই কর্মকর্তা জানান, পুলিশকে টার্গেট করে জঙ্গিরা বোমা বিস্ম্ফোরণ ঘটিয়েছে তা প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে। তবে জড়িতদের শনাক্ত করা যায়নি। তাদের শনাক্ত এবং গ্রেফতারে খুব জোরেশোরে তদন্ত চলছে। 

শনিবার রাত সোয়া ৯টার দিকে একজন মন্ত্রী সায়েন্স ল্যাব মোড় হয়ে ধানমণ্ডি এলাকায় একটি অনুষ্ঠানে যাচ্ছিলেন। সায়েন্স ল্যাব মোড়ে যানজট সৃষ্টি হলে মন্ত্রীর প্রটোকলে থাকা এএসআই সাহাবুদ্দিন গাড়ি থেকে নেমে ট্রাফিক পুলিশকে যানজট নিরসনে সহযোগিতা করছিলেন। এ সময় বিকট শব্দে বিস্পোরণে সাহাবুদ্দিন ও ট্রাফিক কনস্টেবল আমিনুল ইসলাম আহত হন। 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।