ব্রেকিং নিউজ

কোম্পানীগঞ্জে স্পিরিট পানে ৫ জনের মৃত্যু, গ্রেফতার ১

news-details
দেশজুড়ে

 কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি

নোয়াখালী কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় স্পিরিট পান করে ৫ জনের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় আরও দুইজনের অবস্থা গুরুতর। স্পিরিট বিক্রি করায় উপজেলা বসুরহাট বাজারে রফিক হোমিও হল সিলগালা করা হয়েছে এবং ওই হোমিও হলের মালিক ডা. রফিকের ছেলে পিয়মকে পুলিশ গ্রেফতার করে।

মৃতরা হলেন, সিরাজপুর ইউনিয়নের মতলব মিয়ার বাড়ির পাশে সবুজ (৫৮), মোহাম্মদ নগর ২নং ওয়ার্ডের মৃত ফয়েজ আহমদের ছেলে মহিন উদ্দিন (৩৮), পৌরসভা ৮নং ওয়ার্ডের ক্ষিরত মহাজন বাড়ির অনিল রায় এর ছেলে রবি লাল রায় (৫৫) একই ওয়ার্ডের বাঁশ বেপারী বাড়ির নুর নবী মানিক (৫২), চরকাঁকড়া ইউনিয়নের টেকের বাজার সংলগ্ন আবুল খালেক (৫৮)। অসুস্থরা হলেন, লিটন ও দুলাল।

স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার বিকেলে বসুরহাট মেইন রোডের পান বাজার সংলগ্ন রফিক হোমিও হল থেকে স্পিরিট কিনে তা পান করে ৫ জন মারা যান। অসুস্থ লিটন ও দুলালকে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাদের অবস্থা অবনতি হলে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরবর্তীতে তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

স্থানীয়দের অভিযোগ, রফিক হোমিও হলের মালিক ডা. রফিক দীর্ঘদিন থেকে প্রশাসনের সামনে স্পিরিট বিক্রয় করে আসছে।

এদিকে ময়না তদন্ত ছাড়া সুবজ, মহিন উদ্দিন ও আবদুল খালেকের লাশ স্বজনরা দাফন করে। পরে পুলিশ খরব পেয়ে রবি লাল রায় ও মানিকের লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। বর্তমানে বসুরহাট বাজারে পুলিশ ও র‌্যাব টহল দিচ্ছে।

এ বিষয়ে কোম্পানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আরিফুর রহমান জানান, ৫ জনের মৃত্যুর বিষয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে এবং অভিযান চালিয়ে ২ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়। অন্য ৩ জনের লাশ গোপনে দাফন করা হয়েছে। ২জন হাসপাতালে ভর্তি আছে। এ বিষয়ে তদন্ত করা হচ্ছে।

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।