ব্রেকিং নিউজ

আটকের পর ইয়াবা উদ্ধার অভিযানে 'বন্দুকযুদ্ধ', নিহত ২

news-details
দেশজুড়ে

কক্সবাজার প্রতিনিধি

কক্সবাজারের টেকনাফে আটকের পর ইয়াবা উদ্ধারে গিয়ে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গাসহ দুই মাদক কারবারি নিহত হয়েছেন। শনিবার ভোর রাতে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের পর্যটন বাজারের উত্তরে মালির পাহাড়ের পাদদেশে এই ঘটনা ঘটেছে। এ সময় পুলিশের তিন সদস্য গুলিবিদ্ধ হন।

নিহত মাদক কারবারি হলেন টেকনাফ সদর ইউনিয়নের হাতিয়ার ঘোনা এলাকার হাজী হামিদ হোসেনের ছেলে আহাম্মদ হোসেন(৪৫) ও নয়াপাড়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ডি ব্লকের মৃত কালা মিয়ার ছেলে আব্দুর রহমান (৪৬)। আহতরা হলেন, এসআই মোঃ বাবুল , এএস আই অহিদ ও কনস্টেবল মালেকুল।

টেকনাফ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, শুক্রবার রাতে থানা পুলিশের একটি দল অভিযান চালিয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী ও ৬টি মাদক মামলার ওয়ারেন্টভুক্ত পলাতক আসামি আহমদ হোসেন ও আব্দুর রহমানকে গ্রেফতার করে। তাদের থানায় নিয়ে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। পরে তাদের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধারের জন্য টেকনাফ সদর ইউনিয়নের পর্যটন বাজারের উত্তরে মালির পাহাড়ের পাদদেশে যায় পুলিশ। সেখানে পৌঁছামাত্র সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি ছুঁড়তে থাকে।

এসময় পুলিশের তিন সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়। পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে। উভয়ের গোলাগুলিতে আহাম্মদ হোসেন ও আব্দুর রহমান গুলিবিদ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে টেকনাফ সদর হাসপাতালে নেয়া হলে, কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার প্রেরণ করে। সেখানে পৌঁছালে চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করে।

ওসি আরো বলেন, ঘটনাস্থল থেকে দুটি এলজি 8 রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও ৫ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহগুলো কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ব্যাপারে পৃথক আইনে মামলা করা হচ্ছে।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।