ব্রেকিং নিউজ

ঢাকাবাসীকে ডেঙ্গুর প্রকোপ থেকে মুক্তি দেব: মেয়র তাপস

news-details
জাতীয়

আমাদের প্রতিবেদক :

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, বছরব্যাপী মশক নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমের অংশ হিসেবে এখন থেকে ঢাকাবাসীর জন্য অনলাইনে আবেদনের ভিত্তিতে মশার প্রজননস্থলে কীটনাশক ছিটানোর উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। আশা করি, এর মাধ্যমে ঢাকাবাসীকে ডেঙ্গুর প্রকোপ থেকে মুক্তি দিতে পারব।

বুধবার নগর ভবনে অনলাইনের মাধ্যমে মশার প্রজননস্থলে কীটনাশক ছিটানো সেবা প্রদান কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ডিএসসিসি মেয়র এ কথা বলেন।

ডিএসসিসি মেয়র তাপস বলেন, এ সেবা পেতে মানুষের বাসাবাড়িতে মশার লার্ভা কিংবা মশার বিস্তারক্ষেত্র থাকলে সেজন্য আমাদের মোবাইল কোর্ট যে জরিমানা করে, তার চাইতেও অনেক কম মূল্যে বলা যায় নামমাত্র মূল্যে আমরা ঢাকাবাসীকে এ সেবা প্রদান করব।

বছরব্যাপী সমন্বিত মশক নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমের আওতায় এখন হতে একজন সেবাগ্রহীতা ডিএসসিসি’র আওতাধীন এলাকার নিজ বাসাভাড়া, বাণিজ্যিক ভবন বা অন্যান্য স্থাপনায় জমে থাকা মশার লার্ভা বিনষ্ট করতে মশার প্রজননস্থলে কীটনাশক ছিটানো সেবা নিতে পারবেন।

সেবা পেতে সেবাগ্রহীতাকে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ওয়েব পোর্টাল www.dscc.gov.bd এর নির্দিষ্ট লিংকের মাধ্যমে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। পাঁচটি ক্যাটাগরিতে সেবা গ্রহণ করা যাবে এবং সেবা গ্রহীতাকে নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ সেবা মূল্য হিসেবে দিতে হবে। আবেদনের পর ৩ কার্যদিবসের মধ্যে এ সেবা প্রদান কার্যক্রম সম্পন্ন করা হবে।

স্থাপনার ক্যাটাগরি ও সেবার হার নিম্নরূপ: ক. ৩ (তিন) কাঠা পর্যন্ত এক ইউনিট বাড়ি (৫ তলা পর্যন্ত)-২০০০ টাকা। খ. ৩-৫ কাঠা পর্যন্ত ফ্ল্যাট বাড়ি (প্রতি ফ্লোর)-২৫০০ টাকা। গ. ৫-১০ কাঠা পর্যন্ত অ্যাপার্টমেন্ট ১০ তলা পর্যন্ত (প্রতি ফ্লোর)-৩৫০০ টাকা। ঘ. অ্যাপার্টমেন্ট ১০ তলার উপরে বেজমেন্টসহ-৫০০০ টাকা। ঙ. বাণিজ্যিক ভবন ৮০০০ টাকা।

অনুষ্ঠানে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শাহ মো. ইমদাদুল হক, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (ডা.) শরীফ আহমেদ, প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা এয়ার কমডোর বদরুল আমিন, সচিব আকরামুজ্জামানসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।