ছাত্রলীগ নেতা হত্যায় তিনজনের যাবজ্জীবন

news-details
আইন-আদালত

।। রাজশাহী প্রতিনিধি ।। 

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুল অ্যান্ড কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি রবিউল ইসলাম রবি হত্যা মামলায় তিনজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। এ মামলায় খালাস পেয়েছেন সাতজন।

বুধবার দুপুরে রাজশাহীর দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক অনুপ কুমার এ রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ড প্রাপ্তরা হলেন, রাজশাহী নগরীর মেহেরচন্ডি এলাকার হাসান হকারের ছেলে সেতু ইসলাম (৩০), বাবু কশাইয়ের ছেলে  বাবলা (২৭) ও বাবলু ড্রাইভারের ছেলে  সোহাগ (২৬)। যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডের পাশাপাশি তাদের প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। অনাদায়ে আরও ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী এন্তাজুল হক বাবু এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ২০১৩ সালের ১৪ এপ্রিল রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বৈশাখী মেলায় মেহেরচণ্ডি পূর্বপাড়া এলাকার নসু মিয়ার ছেলে রবিউল ইসলামকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করা হয়। পরে তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় রবিউলের ভাই শফিকুল ইসলাম থানায় মামলা করেন। পরবর্তীতে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ১০ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। এরপর গত বছরের মার্চে মামলাটি দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে হস্তান্তর করা হয়। মামলার ২৩ সাক্ষীর মধ্যে ১৯ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ করে আদালত এ রায় ঘোষণা করলেন।

এন্তাজুল হক বাবু জানান, রায় ঘোষণার সময় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত সেতু ছাড়া সব আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। রায় ঘোষণার পর সাজাপ্রাপ্ত দুই আসামিকে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়। আসামিপক্ষের আইনজীবী হিসেবে ছিলেন আবু বাক্কার ও রইসুল ইসলাম।           


 

You can share this post on
Facebook

0 Comments

If you want to comment please Login. If you are not registered then please Register First