ব্রেকিং নিউজ

ঢাকার বাইরের শ্রমিকদের বেতন পৌঁছে দেওয়া হবে

news-details
অর্থনীতি

আমাদের প্রতিবেদক : 

ঢাকার বাইরে অবস্থানরত শ্রমিকদের বেতনের টাকা পৌঁছে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে পোশাক কারখানা মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারক সমিতি (বিজিএমইএ)।

বুধবার (২৯ এপ্রিল) বিজিএমইএ’র পক্ষ থেকে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

এতে বলা হয়, যেসব পোশাক শ্রমিক ঢাকার বাইরে অবস্থান করছেন, তাদের ঢাকায় আসার প্রয়োজন নেই। তাদের বেতন পৌঁছে দেওয়া হবে। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী বিজিএমইএ’র পক্ষ থেকে আশেপাশে অবস্থানরত শ্রমিকদের নিয়ে কারখানা খোলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। সেজন্য ঢাকার বাইরে থেকে কোনো পোশাক শ্রমিককে না আসার জন্য বলা হয়। এরপর বেতন না পাওয়ার শঙ্কা নিয়ে অনেক শ্রমিক গ্রাম থেকে ঢাকায় আসতে শুরু করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে বিজিএমইএ’র পক্ষ থেকে ঢাকার বাইরে থাকা শ্রমিকদের না আসার অনুরোধ জানানো হয় এবং বলা হয় তাদের বেতন পৌঁছে দেওয়া হবে।

এর আগে বিজিএমইএ সভাপতি ড. রুবানা হক কারখানা খোলার বিষয়টি অবহিত করে শ্রম মন্ত্রণালয়ের সচিবের কাছে একটি চিঠি পাঠিয়েছিলেন। ওই চিঠিতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ধীরে ধীরে অর্থনৈতিক কার্যক্রম চালুর কথা উল্লেখ করে সংগঠনের সদস্যভুক্ত কারখানাগুলো পর্যায়ক্রমে খোলা হচ্ছে বলে উল্লেখ জানানো হয়।

শুরুতে ২৬ এপ্রিল ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জের কিছু কারখানা, ২৮ থেকে ৩০ এপ্রিল আশুলিয়া, সাভার, ধামরাই ও মানিকগঞ্জের কারখানা, ৩০ এপ্রিল রূপগঞ্জ, নরসিংদী, কাঁচপুর এলাকা, ২ ও ৩ মে গাজীপুর ও ময়মনসিংহ এলাকার কারখানা চালু করা হবে। কারখানা খোলার ক্ষেত্রে শুরুতে উৎপাদন ক্ষমতার ৩০ শতাংশ চালু করা হবে। পর্যায়ক্রমে তা বাড়ানো হবে।

চিঠির জবাবে শ্রম মন্ত্রণালয় থেকে সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মেনে কারখানা চালু করার বিষয়ে নির্দেশনা দেওয়া হয়।

অন্যদিকে পোশাক কারখানা খুলতে ১৭ পৃষ্ঠার একটি নির্দেশনা দেওয়া হয়। ১৭ পৃষ্ঠার নির্দেশনায় বিজিএমইএ প্রাথমিকভাবে কারখানার কাছাকাছি বসবাসকারী শ্রমিকদের কাজে নিয়োগের জন্য মালিকদের প্রতি আহ্বান জানায়। করোনার বিরুদ্ধে লড়াই শেষ না হওয়া পর্যন্ত সম্প্রতি গ্রাম থেকে ফিরে আসা শ্রমিকদের কারখানায় প্রবেশের অনুমতি না দেওয়ারও পরামর্শ দেয় সংগঠনটি।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।