ব্রেকিং নিউজ

থাপ্পড়ের প্রতিশোধ নিতে ফারুককে খুন: পুলিশ

news-details
দেশজুড়ে

রামগড় (খাগড়াছড়ি) প্রতিনিধি

ঘটনার ২০ দিনের মাথায় খাগড়াছড়ির রামগড়ের কালাডেবায় রাতের আঁধারে নিজ বাড়িতে ফেরার পথে মো. ওমর ফারুক নামে এক যুবককে হত্যার রহস্য উদঘাটন করেছে পুলিশ।  এ ঘটনায় মৃদুল কান্তি ত্রিপুরা প্রকাশ আকাশকে (১৮) কালাডেবা বাজার থেকে শনিবার আটক করা হয়েছে। মৃদুল ত্রিপুরা পৌরসভার কালাডেবা এলাকার উপেন্দ্র ত্রিপুরার ছেলে। 

গত ১১জুলাই রাত সাড়ে ১০টার সময় মাথায় গুরতর আঘাতপ্রাপ্ত ফারুককে স্থানীয়রা উদ্ধার করে প্রথমে রামগড় হাসপাতাল ও পরে চট্টগ্রাম মেডিকেলে নিয়ে গেলে রাত ২টার দিকে তার মৃত্যু হয়। নিহত ফারুক রামগড়ের কালাডেবা আলী নেওয়াজের ছেলে। তিনি  ফটিকছড়িতে একটি ওষুধ কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করতেন।

হত্যার রহস্য উদঘাটনের পর আসামি মৃদুলকে শনিবার খাগড়াছড়ি আমলী আদালতে নিয়ে যায় পুলিশ। এসময় আদালতের সিনিয়র ম্যাজিস্ট্রেট মো. মোরশেদুল আলমের কাছে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছেন মৃদুল ত্রিপুরা।

পুলিশের দেয়া সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ঘটনার কয়েকদিন আগে আসামি মৃদুল ঘটনাস্থলের কিছু দূরে ব্রিজের ওপরে সন্ধ্যায় দুই পা মেলে বসে মোবাইলে কথা বলছিলেন। ওসময় রাস্তা দিয়ে ফারুক হেঁটে যাওয়ার সময় মৃদুলের পায়ের সঙ্গে আঘাত লাগে। এতে মৃদুল দুঃখ প্রকাশ করার পরেও ফারুক তাকে থাপ্পর মারে। এ ঘটনায় ফারুককে উচিত শিক্ষা দেওয়ার পরিকল্পনা করেন মৃদুল। ঘটনার সময়ে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টির মধ্যে ফারুক ছাতা মাথায় ও মোবাইলের হেডফোনে কথা বলতে বলতে বাড়ি ফিরছিলেন। ফারুক ঘটনাস্থলে ব্রিজের ওপর অপেক্ষারত মৃদুলকে অতিক্রম করে চলে যান। এ সময় মৃদুল পিছু নেন এবং কাঠের চেলি দিয়ে ছাতার ওপর দিয়ে ফারুকের মাথায় সজোরে আঘাত করেন। এসময় ফারুক মাটিতে পড়ে অচেতন হয়ে গেলে মৃদুল ফারুকের ব্যবহৃত মোবাইলটি নিয়ে পালিয়ে যান।

রামগড় থানার ওসি মো. শামসুজ্জামান জানান, নিহত ফারুকের ব্যবহৃত চুরি হওয়া ফোনটির সূত্র ধরে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় রহস্য উদঘাটনে কাজ শুরু করে পুলিশ। ফোনটি ঘটনার দিন ভোরে অন করে আবার বন্ধ করে দেয়। পরে গত ১৩ জুলাই ফোনটিতে নতুন সিম লাগিয়ে ব্যবহার শুরু করে আসামি। তারই সূত্র ধরে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। আসামির কাছ থেকে ফারুকের ব্যবহৃত শাওমি মোবাইল ফোনটিও উদ্ধার করেছে পুলিশ।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।