ব্রেকিং নিউজ

পিরোজপুরে সিমেন্টবোঝাই কার্গো ডুবি, মালিকের লাশ উদ্ধার

news-details
দেশজুড়ে

পিরোজপুর প্রতিনিধি

পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলায় কঁচা নদীতে ১ হাজার ৯০০ বস্তা সিমেন্টসহ একটি কার্গো ডুবে গেছে। এ দুর্ঘটনায় নৌযানে থাকা কাউয়ুম খান (৩৭) নামে কার্গো মালিকের মৃত্যু হয়েছে। 

শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে জেলার ভান্ডারিয়া উপজেলার তেলিখালী ইউনিয়নের পশ্চিম জুনিয়া গ্রাম সংলগ্ন কঁচা নদী থেকে ফায়ার সার্ভিসের ডুবরি দল কাউয়ুমের লাশ উদ্ধার করে।

কাউয়ুম খান বাগেরহাট জেলার মোড়লগঞ্জ উপজেলার বাসান্ডা গ্রামের শহীদ খানের ছেলে এবং ডুবে যাওয়া রায়হান-২ নামের মিনি কার্গোটির মালিক।

ভান্ডারিয়া থানার ওসি এস.এম. মাকসুদুর রহমান জানান, বৃহস্পতিবার রায়হান-২ নামের নৌযানটি মংলা বন্দর থেকে সিমেন্টবোঝাই করে বরিশালের উদ্দেশে যাচ্ছিলো। পথে যাত্রা বিরতি করে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ভান্ডারিয়া উপজেলার কঁচা নদীর পশ্চিম জুনিয়া গ্রামের রাস্তা সংলগ্ন বেড়ি বাঁধের পাশে নোঙ্গর করে। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে হঠাৎ কঁচা নদীর নোঙ্গর করা নৌযানটি তীরবর্তী তেলীখালী এলাকার নদী ভাঙনের কবলে পড়ে। এ সময় নোঙ্গর করা নৌযানটি ডুবে যায়। এসময় কার্গো মালিক কাউয়ুম নিখোঁজ হলেও এর চালক আব্দুল মান্নান (৬৫) ও হেলপার ফয়সাল বেপারী (১৫) সাঁতরে তীরে উঠতে সক্ষম হন।

ওসি আরও জানান, খবর পেয়ে বরিশাল থেকে আসা ফায়ার সার্ভিসের ডুবরি দল শুক্রবার সকালে নদী থেকে কাউয়ুমের লাশ উদ্ধার করে। এরপর লাশ পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। বর্তমানে ডুবে যাওয়া কার্গোটি উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।