ব্রেকিং নিউজ

পার্বত্যাঞ্চলের নিরাপত্তায় সব পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

news-details
জাতীয়

বান্দরবান প্রতিনিধি 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের বান্দরবান, রাঙ্গামাটি ও খাগড়াছড়ি খুবই সুন্দর তিনটি জেলায় ব্যাপক উন্নয়ন কাজ করা হচ্ছে। উন্নয়নের সঙ্গে এ অঞ্চলের নিরাপত্তা ব্যবস্থাও জোরদার করা হচ্ছে। পাহাড়ের উন্নয়ন এবং নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে সমান গুরুত্ব দিয়ে সরকারের পক্ষ থেকে নানামুখী পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে মিয়ানমারের সঙ্গে সীমান্ত সড়ক নির্মাণের কাজও চলমান রয়েছে। সীমান্ত সড়ক বাস্তবায়িত হলে এ অঞ্চলে ডেভেলপমেন্ট এবং বিনিয়োগ আরও বেড়ে যাবে। পাহাড়ের উন্নয়ন এবং নিরাপত্তায় করণীয় সব ব্যবস্থায় গ্রহণ করা হবে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে বান্দরবানের দুর্গম থানচি উপজেলায় নির্মিত মডেল থানা ভবনের উদ্বোধনকালে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান স্থানীয় সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

গণপূর্ত বিভাগ (পিডব্লিউডি) ও স্থাপত্য অধিদফতরের বাস্তবায়নে এবং বাংলাদেশ পুলিশের সার্বিক সহযোগিতায় ৯ কোটি ৪৭ লাখ টাকা ব্যয়ে নির্মিত চারতলা বিশিষ্ট থানচি মডেল থানা ভবনটি উদ্বোধন করেন তিনি।

এ সময় বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজি) ড. বেনজীর আহমেদ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব মোস্তফা কামাল উদ্দিন, চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন, বান্দরবান জেলা প্রশাসক মো. দাউদুল ইসলাম, পুলিশ সুপার জেরিন আখতারসহ বিভিন্ন অফিসের কর্মকর্তা, পুলিশ, স্থানীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান এমপি আরও বলেন, সীমান্ত নিরাপত্তায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হচ্ছে। ইতোমধ্যে নাইক্ষ্যংছড়ি এবং থানচি উপজেলায় সীমান্ত সড়ক নির্মাণের কাজ চলমান রয়েছে। নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদারের স্বার্থে থানচি-লিইক্রে সীমান্তর সড়ক নির্মাণের কাজও শুরু হয়েছে।

তিনি বলেন, পার্বত্যাঞ্চলের নিরাপত্তায় যা যা করা দরকার সবকিছুই করা হবে। সেনাবাহিনী, বিজিবি ও পুলিশ সবার সঙ্গে আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপগুলো গ্রহণ করা হচ্ছে। যাতে পার্বত্যাঞ্চল তথা সীমান্ত আরও বেশি নিরাপদ ও সুরক্ষিত করা যায়।

এর আগে সকালে মন্ত্রী হেলিকপ্টারযোগে ঢাকা থেকে বান্দরবানের থানচি এসে পৌঁছান। পরে মন্ত্রীসহ অতিথিরা থানা ভবনের সামনে বৃক্ষরোপণ করেন। এছাড়াও স্থানীয়দের সঙ্গে মতবিনিময় অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি।

বিকালে নির্মাণাধীন সীমান্ত সড়কের বাগলাই নামক ৪ কিলোমিটার স্থানটি পরিদর্শন করেন। রাতে বেসরকারি রিসোর্টে রাত্রীযাপন করবেন। শুক্রবার থানচির দুর্গম রেমাক্রী এলাকা পরিদর্শন করে বান্দরবান ত্যাগ করবেন মন্ত্রী।
 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।