ব্রেকিং নিউজ

জয়ের পথে জো বাইডেন, প্রতারণার অভিযোগ ট্রাম্পের

news-details
আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মিশিগান ও উইসকনসিনে বিজয়ের পরে ডেমোক্র্যাটদলীয় প্রার্থী জো বাইডেন হোয়াই হাউসের পথে অনেকটা এগিয়ে আছেন। 

কিন্তু প্রতিদ্বন্দ্বী প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যেমন ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন, তেমনি তার প্রচার শিবিরও ভোট গণনা বন্ধে আইনের আশ্রয় নিয়েছে। বার্তা সংস্থা এএফপির খবরে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

জাতীয় টেলিভিশনে দেয়া এক ভাষণে বাইডেন বলেন, আমি এখনো জয়ের ঘোষণা দিচ্ছি না। কিন্তু ভোট গণনা শেষ হলেই, আমার মনে হচ্ছে, আমি বিজয়ী হবো।

এ সময়ে তার পাশে রানিংমেট কমলা হ্যারিস ছিলেন। প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ উইসকনসিন ও মিশিগানের এগিয়ে থাকায় সব মিলিয়ে ২৬৪টি ইলেকটোরাল ভোট পেয়ে যান বাইডেন। আর ট্রাম্প পেয়েছেন ২১৪টি।

নেভাদায়ও তিনি সামান্য এগিয়ে আছেন। সেখানকার ছয় ইলেকটোরাল ভোট পেলে বা জর্জিয়া কিংবা পেনসিলভেনিয়ায় তুমুল লড়াইয়ের পর বিজয়ী হলেও হোয়াইট হাউসের জন্য দরকার ২৭০ জাদুর সংখ্যায় পৌঁছে যাবেন তিনি।

তবে প্রতারণার অভিযোগ তুলে উত্তপ্ত কথার লড়াই শুরু করে দিয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। 

কিন্তু বাইডেন প্রশান্তির পরিস্থিতি তৈরি করতে চেষ্টা করছেন। নেতৃত্বের মেরুকরণ ও মহামারীর আঘাতে গত চার বছরে যুক্তরাষ্ট্রে ব্যাপক বিভেদ তৈরি হয়েছে। বুধবার করোনায় আক্রান্তের সংখ্যাও ছিল লাখের কাছাকাছি।

বাইডেন বলেন, বিভিন্ন বিষয়ে বিরোধীদের দৃষ্টিভঙ্গি কতটা কঠিন ও গভীর, তা আমি জানি। এগিয়ে যেতে হলে বিরোধীদের সঙ্গে শত্রুর মতো আচরণ করা বন্ধ করতে হবে। আমরা পরস্পরের শত্রু না। আমাদের বিচ্ছিন্ন করে দিতে এমন যেকোনো কিছুর চেয়ে আমেরিকানরা অনেক বেশি শক্তিশালী।

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে কে বিজয়ী হবেন, তা জনপ্রিয়তার ভোটে নির্ধারণ করা হয় না। বরং ৫৩৮টি ইলেকটোরাল ভোটের মধ্যে সংখ্যাগরিষ্ঠ অর্জন করতে হয়। অর্থাৎ যিনি ২৭০টি ইলেকটোরাল ভোট পাবেন, তিনিই যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হবেন।

মিশিগানে বাইডেন জয়ী বলে জানিয়েছে মার্কিন গণমাধ্যম। সেখানে তিনি এক লাখ ২০ হাজার ভোটে এগিয়ে। এর আগে উইসকনসিনে নিজের বিজয় দাবি করেন যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক এই ভাইস প্রেসিডেন্ট।


 

You can share this post on
Facebook

0 মন্তব্য

মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন ।